রবিবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১০:৫৬ পূর্বাহ্ন

ভারতে মুসলিমদের অবদান নিয়ে এম সাখাওয়াত হোসেনের বই: রুশিয়া জামান রত্না

ভারতে মুসলিমদের অবদান নিয়ে এম সাখাওয়াত হোসেনের বই: রুশিয়া জামান রত্না

ড. এম সাখাওয়াত হোসেন, ব্রমন কাহিনি, সাবেক নির্বাচন কমিশনার, ব্রিগেডিয়ার জেনারেল, বই আলোচনা, রকমারি, রুশিয়া জামান রত্না, আগুয়ান, agooan, koto jonopad koto etihas, brig gen m shakhawat hossain, book review, rushia jaman ratna,

গ্রন্থের নাম – কত জনপদ কত ইতিহাস
গ্রন্থের ধরন – ইতিহাস নির্ভর ভ্রমণকাহিনী
লেখক: ব্রিগেডিয়ার জেনারেল ড. এম সাখাওয়াত হোসেন এনডিসি, পিএসসি (অব.)
প্রকাশনা প্রতিষ্ঠান- পালক পাবলিশার্স
প্রচ্ছদ – এম. সাফাক হোসেন
প্রথম প্রকাশ – ফেব্রুয়ারী, ২০১০
পৃষ্ঠা – ২৮২

সময় ও কালের পরিমাপে ভারত ভূমিতে যত জাতি, বর্ণ, গোষ্ঠী এবং তাদের কৃষ্টি ও সংস্কৃতির মিলন ঘটেছে তা পৃথিবীর ইতিহাসে বিরল। প্রাগৈতিহাসিক যুগের সিন্ধু সভ্যতা থেকে শুরু করে বিগত শতাব্দীর মাঝামাঝি সময় পর্যন্ত বহু জাতি-গোষ্ঠীর পদচারণায় মুখর হয়েছে ভারতের অগণিত জনপদ। প্রকৃতির নিয়মে সাম্রাজ্যের উত্থান পতন হয়েছে- ইতিহাসে এসব ঘটনা বিধৃত আছে। তবে ভারতে মুসলিম শাসনামল ছবির মত আজও ভাস্বর ও সূর্যের মত দেদীপ্যমান এদের রেখে যাওয়া পুরাকীর্তির জন্য। এ সমস্ত পুরাকীর্তি মোটেই প্রাণহীন স্থাপনা নয় বরং এদের প্রতিষ্ঠার পেছনে আছে নানা দুঃখ, শোক, হিংসা, বঞ্চনা, প্রেম আর ভালোবাসার কাহিনি।

বর্তমান ভারতে মুসলিম শাসকদের অবদান এবং পুরাকীর্তি মুছে ফেলার যে প্রয়াস লক্ষ্য করা যাচ্ছে তা এ উপমহাদেশের জন্য অশুভ বলে প্রতীয়মান।

ভারতের ১৫তম লোকসভা নির্বাচন উপলক্ষে আমন্ত্রিত অতিথি হিসেবে ভারত সফরে গিয়েছিলেন বাংলাদেশের তৎকালীন নির্বাচন কমিশনার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল ড. এম সাখাওয়াত হোসেন এনডিসি, পিএসসি (অব.)। সঙ্গে ছিলেন তাঁর স্ত্রী ডাঃ রেহানা খানম। মাত্র ১০ দিনের এই সফরে “দিল্লী-আগ্রা-আজমীর-জয়পুর ঘুরে দেখেছেন। প্রথমবার তিনি এসব শহরে ভ্রমণ করেন এবং ভ্রমণের পূর্ণ সদ্ব্যবহার করেন৷ এখানকার ঐতিহাসিক নিদর্শন পরিদর্শন করে সে অভিজ্ঞতা এবং ইতিহাস নিয়ে রচনা করেন ইতিহাস নির্ভর ভ্রমণকাহিনী কত জনপদ কত ইতিহাস

রুশিয়া জামান রত্না - আগুয়ান - agooan
রুশিয়া জামান রত্না

২৮২ পৃষ্ঠার এই ভ্রমণকাহিনীতে ১৮ টি অধ্যায় রয়েছে। লেখক নিজে এই সফরকে ভারতের বিশাল ইতিহাসের মাত্র কয়েকটি পাতার সফর হিসেবে দেখেছেন। কিন্তু ইতিহাসের সাথে তাঁর প্রতিটি পরিচিতিকে তিনি তার পঠন পাঠন ও পূর্বজ্ঞানের আলোকে অন্তরঙ্গ করে তুলেছেন। যেমন দিল্লিতে নিজামউদ্দিন আউলিয়ার মাজার দেখতে গিয়ে তিনি একদিকে যেমন দালান দেখেছেন, খাবার দোকান দেখেছেন, মোয়াল্লেম হওয়ার ইচ্ছা নিয়ে আসা লোকজনের সঙ্গে কথা বলেছেন, কিন্তু একই সঙ্গে তিনি নিজামুদ্দিন আউলিয়া, তাঁর শিষ্য আমীর খসরু, মির্জা গালিব প্রমুখ প্রখ্যাত ব্যক্তিদের ইতিহাস মনোগ্রাহী ভাষায় বর্ণনা করেছেন৷

“নিজামুদ্দিন এর সাথে আমীর খসরুর সম্পর্ক ছিল আধ্যাত্মিক গুরু এবং শিষ্যের। নিজামুদ্দিনের মৃত্যুর ছয় মাস পরে আমীর খসরু মৃত্যুবরণ করেন। তাঁর কবর নিজামুদ্দিন আউলিয়া মাজারে প্রবেশের পথেই রয়েছে।”
পৃষ্ঠা- ৪৩

সমকাল থেকে ইতিহাসে, ইতিহাসের রাজপথ থেকে গলিপথে তিনি সচ্ছন্দে বিচরণ করেছেন। ইতিহাস বর্ণনার যে পদ্ধতি জনাব সাখাওয়াত হোসেন ব্যবহার করেছেন তা যেমন বস্তুনিষ্ঠ, তথ্যসমৃদ্ধ, তেমনি অন্তরঙ্গ এবং ব্যক্তিগত নানা অভিজ্ঞন ঋদ্ধ। ফলে তাঁর বর্ণনায় ঝাঁসির রানি লক্ষ্মী, শাহজাদী জাহানারা, শাহজাহান, হুমায়ুন জীবন্ত হয়ে দেখা দেন।

মজার বিষয় হলো ইতিহাসের বর্ণনার সঙ্গে সঙ্গে ভারতের নির্বাচন, নির্বাচনের ইতিহাস, নির্বাচন পর্যবেক্ষণের অভিজ্ঞতা, ভারতের রাজনীতিতে বাবরি মসজিদের গুরুত্বও সাবলীলভাবে বর্ণনা করেছেন।

“বিজেপি যেভাবে হিন্দুত্বের ক্ষমতায় মত্ত হয়ে বাবরি মসজিদ ভেঙেছে সে ধরনের অজুহাত দেখিয়ে আগামীতে স্বর্ণ মন্দির, জামে মসজিদ এমনকি লাল কেল্লাও ভেঙে ফেলতে পারে। তারা এ সব করে ক্ষমতায়ও যেতে পারে তবে তাদের জন্যও ওই সূফী সাধকের উক্তি সত্য হতে পারে। বিজেপির জন্যও প্রযোজ্য হনুজ দিল্লি দূর আস্ত
পৃষ্ঠা; ৩৭-৩৮

এ বইয়ের ভাষা গতিশীল, পাঠককে তা সহজেই ঘটনা ও বর্ণনার সমান্তরাল টেনে নেয়। বর্ণনাতেও বাহুল্য বা অকারণ পাণ্ডিত্য প্রদর্শনের কোন প্রয়াস নেই। ফলে বইটি প্রকৃত অর্থে সুখপাঠ্য।

কত জনপদ কত ইতিহাসকে তাই শেষ বিচারে শুধু ভ্রমণ কাহিনী বলা যাবে না। অথবা হয়তো বলাও যায় ; তবে একটু যোগ করে বলা যায় ভূগোল ও ইতিহাসে ভ্রমণ।
ভারতের বিজেপি সরকার যেভাবে মুসলমানদের ইতিহাস মুছে ফেলার প্রয়াস নিচ্ছে তাতে মুসলমানদের গৌরব ইতিহাস জানতে হলে এ ধরনের বই পড়ার কোন বিকল্প নেই। এসব গৌরবময় ইতিহাস মুসলমানদের ঐক্যবদ্ধ করার পেছনে ভূমিকা রাখবে বলেই আমার বিশ্বাস।

বইটি কিনতে এখানে ক্লিক করুন: কত জনপদ কত ইতিহাস

আরও পড়ুন: পশ্চিমবঙ্গের জনপ্রিয় কবি শ্রীজাত’র ১০০ কাপলেট

সাদাত হোসাইনের ১০০ কাপলেট

শেযার করুন...




© All rights reserved
Design & Developed BY ThemesBazar.Com